ফেনী জেলা ফুটবল কোচ দীপক চন্দ্র নাথ এএফসি’র ‘এ’ ক্যাটাগরির কোচিং লাইসেন্সে উত্তীর্ন

0
288
ফেনী জেলা ফুটবল কোচ দীপক চন্দ্র নাথ এএফসি'র ‘এ’ ক্যাটাগরির কোচিং লাইসেন্সে উত্তীর্ন

জহিরুল আলম কামরুল, ফেনী: এএফসির কোচিং লাইসেন্সের ‘সি’ ও ‘বি’ সম্পন্ন করে ‘এ’ কোর্সটাও করেছিলেন ফেনীর জেলা ফুটবল কোচ দীপক চন্দ্র নাথ। বাফুফে ভবনে গতকাল শনিবার থেকে ‘এ’ লাইসেন্স কোর্সে উত্তীর্ণ হওয়াদের সার্টিফিকেট প্রদান শুরু হয়েছে। বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (বাফুফে) এএফসির ‘এ’ কোচিং কনভেনশনের আওতায় আসে গত বছর জুলাইয়ে। এরপর ২০১৯-২০ সালে বাফুফের অধীনে অনুষ্ঠিত হয় ‘এ’, ‘বি’ ও ‘সি’ কোর্স। বাংলাদেশ, ভারত, মালদ্বীপ, ভুটান, শ্রীলংকা ও মালয়েশিয়ার কোচরা অংশ নিয়েছিলেন এই কোর্সে। যাদের মধ্যে ‘এ’ ২৪ জন, ‘বি’ ২৩ জন এবং ‘সি’-তে ২৪জন উত্তীর্ণ হয়েছেন। কোর্স পরিচালনা করেছিলেন বাফুফের টেকনিক্যাল ডাইরেক্টর পল স্মলি। ‘এ’ লাইসেন্স উত্তীর্ণ হওয়া ২৪

জনের মধ্যে বাংলাদেশের ১৪ জন। বাংলাদেশের নুরুল হক মানিক করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়ার কারনে মানিক ছাড়া বাকি যে ১৩ জন বাংলাদেশের ‘এ’ লাইসেন্স কোর্সে উত্তীর্ণ হয়েছেন তারা হলেন- দীপক চন্দ্র নাথ, এমাদুল হক খান, মোহাম্মদ সালাউদ্দিন, জুলফিকার মাহমুদ মিন্টু, আলী আজগর নাসির, শাহাদাত হোসেন, একেএম নুরুজ্জামান নয়ন, ছাইদ হাছান কানন, শহিদুল ইসলাম, জাভেদ হোসেন, মো. সেলিম মিয়া, কাজী আলতাফুল হক ও শাহিনুল হক। করোনাভাইরাসের কারণে শনিবার সীমিত আকারে সনদ বিতরণ করেছে বাফুফে। ওইদিন কয়েকজনের হাতে কোর্সের সনদ তুলে দিয়েছেন বাফুফে সভাপতি কাজী মো. সালাউদ্দিন। উত্তীর্ণ হওয়া বিদেশীদের সনদ পাঠিয়ে দেবে বাফুফে। আর বাংলাদেশের যারা বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে উত্তীর্ণ হয়েছেন পর্যায়ক্রমে তাদের সনদ প্রদান করা হবে বলে বাফুফে’র কর্মকর্তারা জানান।

দীপক চন্দ্র নাথ দীর্ঘ সময় ধরে ফেনী জেলা ফুটবল কোচের দায়িত্বে নিয়োজিত আছেন। তার প্রশিক্ষণ প্রাপ্ত ফেনী জেলার ফুটবল খেলোয়াড়রা জাতীয় লীগে বিভিন্ন দলের হয়ে মাঠ কাঁপাচ্ছেন। তাছাড়া প্রতিদিন বিকেলে ফেনী ভাষা শহীদ আবদুস সালাম স্টেডিয়ামে বিভিন্ন বয়সের শতাধিক খেলোয়াড় তার নিকট প্রতিনিয়ত প্রশিক্ষণ নিচ্ছে। ‘এ’ ক্যাটাগরির কোচিং লাইসেন্স প্রাপ্তিতে তিনি দীপক চন্দ্র নাথ তার প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে বলেন, এ প্রাপ্তি শুধু আমার একার নয়, এ প্রাপ্তি পুরা ফেনী জেলাবাসীর। সবার দোয়ায় ও আর্শিবাদে আজ
আমার এত বড় প্রাপ্তি। এ জন্য আগামী দিন গুলোতে ফেনীবাসীকে আরো বড় কিছু উপহার দেয়ার জন্য সবার দোয়া ও আর্শিবাদ কামনা করছি।

 

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here